কখনও জানতে চাইব না...

প্রকাশিত: ১৪ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০৪:৪৭:৫৫

১. সমুদ্র ও ভালোবাসা কথাছিল কোনো একদিন দু’জনে ভেজাব চোখ সমুদ্রজলে,ঝিনুকের ভিতর বন্ধক রাখবআমাদের অভিমানের সবটুকু রঙ। তারপর-বিশাল আকাশের বুকে মাথা রেখে আকাশেই গড়ব সংসার।অথচ তুমি আজ-অন্য কারও চোখে দেখ সমুদ্রের নীল সৌন্দর্যের হাতছানি।

২. বলছি না তোমায়বলছি না তোমায়, আমাকে মনে রাখতেই হবে-সকাল, দুপুর কিংবা সন্ধ্যায়হাসিমুখে দুটো কথা বলতেই হবে।দিনের সমস্ত ব্যস্ততা সেরযতন করে নিজের যত্ন নেয়ার পরবলছি না তোমায়, প্রতিদিনকার মতোআমার ভালোমন্দের খোঁজ নিতেই হবে।জোনাকির আলোয় হারমানাকোনো এক চাঁদনী রাতেহাতে হাত রেখে কাটানো অপূর্ব মুহূর্তবলছি না তোমায়, স্মরণ করতেই হবে।

সূর্যডোবা সন্ধ্যায় প্রমত্তা নদীর ধারেআকস্মিক জড়িয়ে ধরার স্বর্গীয় অনুভূতিবলছি না তোমায়, আগলে রাখতেই হবে।তুমিহীনা এলোমেলো এই আমারচশমা, কলম, মানিব্যাগ আর ল্যাপটপআগের মতোই ঠিকঠাক গোছানো হয় কিনাবলছি না তোমায়, এই চিন্তা করতেই হবে।অফিস শেষে চৈত্রের খরতাপে ঘর্মাক্ত শরীরেবাসায় ফেরার পর তোয়ালে আর ঠান্ডা জলেক্লান্তি দূর করার সেই প্রাণান্তর চেষ্টাবলছি না তোমায়, স্মৃতির ফ্রেমে বাঁধতেই হবে।

মাঝরাতে হঠাৎ ঘুম ভেঙে চোখ রক্তাক্ত হলেপরম মমতায় শান্ত করার সেইসব ক্ষণবলছি না তোমায়, আমৃত্যু লালন করতেই হবে।দিনের পর দিন কারও প্রতীক্ষাআমার দু’চোখ দৃষ্টিহীন হয়েছে কিনাবলছি না তোমায়, একবার জানতেই হবে।দিনের শেষে তুমি খুব সুখেই থাকোবলছি না তোমায়, এই সুখের কিছুটা ভাগআমাকে ফিরিয়ে দিতেই হবে।

৩. মুখোমুখিশতসহস্র শতাব্দী পেরিয়েযদি কখনও সুযোগ হয়-আমি একবার দাঁড়াতে চাইমুখোমুখি তোমার।কোনো কৈফিয়ত চাইব না,জানতে চাইব না ব্যস্ততার অজুহাতেআমাকে এড়িয়ে যাওয়ার কারণ।শোনাতে চাইব না তোমার প্রতীক্ষায় কাটানোআমৃত্যু নিদ্রাহীন জীবনেরপ্রতি মুহূর্তের নির্মম মৃত্যুর গল্প।

মুখোমুখি দাঁড়িয়ে বলব নাভালোবাসো আমায়, ঠিক আগের মতো!শুধু জানতে চাইবতুমি ভালো আছো তো?মুখোমুখি দাঁড়িয়ে, শুধু একবার।

প্রজন্মনিউজ২৪/নাজিম উদ্দীন

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন