গাফফার চৌধুরীর মরদেহ ঢাকায় পৌঁছেছে

প্রকাশিত: ২৮ মে, ২০২২ ১২:৫৯:০৬ || পরিবর্তিত: ২৮ মে, ২০২২ ১২:৫৯:০৬

গাফফার চৌধুরীর মরদেহ ঢাকায় পৌঁছেছে

নিউজ ডেস্কঃ মহান একুশের অমর সংগীতের রচয়িতা বরেণ্য সাংবাদিক, সাহিত্যিক ও কলাম লেখক আবদুল গাফ্‌ফার চৌধুরীর মরদেহ ঢাকায় পৌঁছেছে।

শনিবার বেলা ১১টার দিকে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের উড়োজাহাজ ‘হংস বলাকা’য় করে গাফফার চৌধুরীর মরদেহ ঢাকায় পৌঁছে।

মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক সরকারের পক্ষে মরদেহ গ্রহণ করেন। উপস্থিত ছিলেন কৃষিমন্ত্রী আব্দুর রাজ্জাক, রেলমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন, বিমান প্রতিমন্ত্রী মাহবুব আলী, আওয়ামী লীগ নেতা মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া, প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী বিপ্লব বড়ুয়া।

উড়োজাহাজ থেকে মরদেহ নামানোর পর জাতীয় পতাকায় ঢেকে দেওয়া হয়। পরে সেখানে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান মন্ত্রীরা।

বিমানবন্দরে মুক্তিযুদ্ধবিষয়মন্ত্রী মোজাম্মেল হক সাংবাদিকদের বলেন, “আবদুল গাফফার চৌধুরী ছিলেন ইতিহাসের জলন্ত সাক্ষী। ইতিহাসের টার্নিং পয়েন্ট তিনি জাতির সামনে তুলে ধরেছেন আজীবন। বাংলার মানুষ তার কাছ থেকে জানার জন্য অপেক্ষা করতেন।”

লন্ডনে বাংলাদেশ হাইকমিশনের তত্ত্বাবধানে প্রয়াতের স্বজনেরাও একই ফ্লাইটে ছিলেন।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বরাতে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয় এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানিয়েছে।

মুক্তিযুদ্ধকালে মুজিবনগর সরকারনিবন্ধিত স্বাধীন বাংলাদেশের প্রথম পত্রিকা ‘সাপ্তাহিক জয় বাংলা’র প্রতিষ্ঠাতা ও সম্পাদক আবদুল গাফ্‌ফার চৌধুরীর মরদেহ নিয়ে যাওয়া হবে কেন্দ্রীয় শহিদ মিনারে। সেখানে বেলা ১টা থেকে ৩টা পর্যন্ত গার্ড অব অনার ও সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা জানানোর জন্য লাশ রাখা হবে। বেলা সাড়ে ৩টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় মসজিদে তার জানাজা হবে। বিকাল ৪টায় গাফফার চৌধুরীর লাশ আনা হবে তার প্রিয় কর্মস্থল জাতীয় প্রেসক্লাবে। বিকেল সাড়ে ৫টায় মিরপুর শহীদ বুদ্ধিজীবী কবরস্থানে তাঁকে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় সমাহিত করে হবে।

বাঙালির হৃদয়ে চিরজাগরূক অশ্রুমাখা গান ‘আমার ভাইয়ের রক্তে রাঙানো একুশে ফেব্রুয়ারি’র রচয়িতা আবদুল গাফ্‌ফার চৌধুরী  গত ১৯ মে লন্ডনের একটি হাসপাতালে ৮৮ বছর বয়সে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগের সংবাদে দেশ ও আন্তর্জাতিক অঙ্গনে শোকের ছায়া নামে। শুক্রবার (২০ মে) পূর্ব লন্ডনের ব্রিকলেইন মসজিদে তাঁর প্রথম জানাজা হয়। এরপর পূর্ব লন্ডনের ঐতিহাসিক শহীদ আলতাব আলী পার্কের শহীদ মিনারে বাংলাদেশি-ব্রিটিশ কমিউনিটির সদস্যেরা তাঁর প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। এরপর ২৩ মে গাফফার চৌধুরীর স্মরণে পূর্ব লন্ডনে এক মিলাদ মাহফিল ও শোকসভা আয়োজন করে বাংলাদেশ হাইকমিশন।


প্রজন্মনিউজ২৪/এসএমএ

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন