বিএনপির লবিস্ট নিয়োগের খবর মিথ্যাচার: আফরোজা আব্বাস

প্রকাশিত: ২৮ জানুয়ারী, ২০২২ ০৬:৩০:৪৬ || পরিবর্তিত: ২৮ জানুয়ারী, ২০২২ ০৬:৩০:৪৬

বিএনপির লবিস্ট নিয়োগের খবর মিথ্যাচার: আফরোজা আব্বাস

‘বর্তমান সরকার একটা জোকার মন্ত্রিসভা খুলেছে, যেখানে কিছু জোকার মন্ত্রী নিয়োগ দিয়েছে। তাদের কাজই বিএনপির নামে অপপ্রচার করা। সকাল হলে শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান, দুপুর বেলা বেগম খালেদা জিয়া ও রাতের বেলা তারেক রহমানের নামে মিথ্যাচার করা।’

‘তাই এ ভোট ডাকাত সরকারকে হটিয়ে গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে হবে এবং দেশে সুশাসন প্রতিষ্ঠিত করতে হবে।’
 
শুক্রবার (২৮ জানুয়ারি) দুপুরে জাতীয়তাবাদী মহিলা দলের চুয়াডাঙ্গা জেলা শাখার সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন মহিলা দল কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি মির্জা আফরোজা আব্বাস।

‘চেতনায় নারী, বিপ্লবে নারী, গণতন্ত্র ফেরাতে আমরাই পারি’ শ্লোগানে অনুষ্ঠিত হচ্ছে এ সম্মেলন।

তিনি বলেন, যখনই র‌্যাবের নামে নিষেধাজ্ঞা এসেছে, তখনই এ অবৈধ সরকার বিএনপির নামে অপপ্রচার চালাতে শুরু করেছে। বিএনপি কোনো লবিস্ট নিয়োগ করেনি। এটা শেখ হাসিনা সরকারের জোকার মন্ত্রীদের অপপ্রচার মাত্র।

আফরোজা আরো বলেন, ‘শেখ হাসিনা সরকার খুন, গুম ও ধর্ষণের উন্নয়ন করেছে। উন্নয়নের রূপকার তো শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান। তাই উন্নয়নের কথা এই অবৈধ সরকারে মুখে মানায় না। আমরা নতুন এই নির্বাচন কমিশন আইন মানি না। আগের বার দিনের ভোট রাতে করেছে এবার ইভিএম মেশিন। এই ইভিএম মেশিনে আপনি যাতেই টিপ দেন শুধু নৌকা আসবে। আর নৌকা ছাড়া কোনো মার্কাই আসবে না।’
 
তিনি বলেন, আমরা দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি ও সুচিকিৎসার দাবি জানাই। তা নাহলে এই অবৈধ সরকারকে কঠিন পরিস্থিতির মুখে পড়তে হবে। শেখ হাসিনা শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের নামে কুৎসা রটিয়ে প্রতিনিয়ত অমার্জনীয় অপরাধ করছেন বলেও মন্তব্য করেন বিএনপির এ নেত্রী।

এর আগে বেলা সাড়ে ১১টায় বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী মহিলা দলের চুয়াডাঙ্গা জেলা শাখার এ সম্মেলন উদ্বোধন করেন চুয়াডাঙ্গা জেলা বিএনপির আহ্বায়ক ও বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির উপ-কোষাধ্যক্ষ মাহমুদ হাসান খান বাবু।

জেলা বিএনপি নেত্রী রউফুন নাহার রিনার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য দেন মহিলা দলের কেন্দ্রীয় কমিটির সহসভাপতি অ্যাডভোকেট হালিমা নেওয়াজ আরলী। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন জেলা বিএনপির সদস্য সচিব ও একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে চুয়াডাঙ্গার বিএনপি মনোনীত প্রার্থী শরীফুজ্জামান শরীফ।

জেলা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক মোমিন মালিতার সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য দেন জাতীয়তাবাদী মহিলা দল কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সম্পাদক ফিরোজা বুলবুল কলি, সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাড. তসলিমা খাতুন ছন্দা, কৃষি বিষয়ক সম্পাদক ফারিয়া আক্তার প্রমুখ।

সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মির্জা আফরোজা আব্বাস আরো বলেন, ‘আমরা কোন দেশে বসবাস করছি, যে দেশে নারীদের কোনো অধিকার নেই। যে দেশে ধানের শীষে ভোট দেয়ার কারণে নারীকে গণধর্ষিত হতে হয়। যে দেশে স্বামীর সামনে স্ত্রীকে ধর্ষণ করা হয়। এমন দেশ আমরা চাই না। আমরা ও আমাদের পূর্বপুরুষরা এজন্য মুক্তিযুদ্ধ করেননি।’

বিএনপির জনপ্রিয়তাকে আওয়ামী লীগ সরকার ভয় পায় উল্লেখ করে তিনি বলেন, বিএনপির আন্দোলন যতবারই ত্বরান্বিত হয়, ততবারই করোনার দোহাই দিয়ে জনগণকে ঘরে ঢুকিয়ে দিয়েছে এই অবৈধ সরকার।

সম্মেলনে বক্তারা দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি ও সুচিকিৎসার দাবি জানান।

পরে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী মহিলা দল চুয়াডাঙ্গা জেলা কমিটির ১০১ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন করা হয়। নতুন কমিটিতে সভাপতি রউফুন নাহার রিনা, সাধারণ সম্পাদক জাহানারা পারভীন, সিনিয়র সহসভাপতি শেফালী খাতুন, সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ছালমা জাহান ও সাংগঠনিক সম্পাদক নাছরিন আক্তারের নাম ঘোষণা করা হয়।


প্রজন্মনিউজ২৪/সুইট

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন



আরো সংবাদ