আট মাসের মধ্যে সর্বনিম্ন মৃত্যু

প্রকাশিত: ১৫ জানুয়ারী, ২০২১ ০৪:৩২:১৩

আট মাসের মধ্যে সর্বনিম্ন মৃত্যু

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ১৩ জন; যা গত আট মাসের মধ্যে সর্বনিম্ন। এর আগে গত ১২ মে মারা গিয়েছিলেন ১১ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় ১৩ জনের মৃত্যু নিয়ে দেশে এখন পর্যন্ত সরকারি হিসাবে মারা গেলেন সাত হাজার ৮৬২ জন। ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ৭৬২ জন। এ নিয়ে এখন পর্যন্ত শনাক্ত হলেন পাঁচ লাখ ২৬ হাজার ৪৮৫ জন। একই সময়ে সুস্থ হয়েছেন ৭১৮ জন। এ নিয়ে করোনা থেকে মোট সুস্থ হলেন ৪ লাখ ৭১ হাজার ১২৩ জন।

শুক্রবার (১৫ জানুয়ারি) করোনাবিষয়ক নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে স্বাস্থ্য অধিদফতর আরও জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় শনাক্তের হার পাঁচ দশমিক ৫৭ শতাংশ, এখন পর্যন্ত শনাক্তের হার ১৫ দশমিক ৩৪ শতাংশ। গত ২৪ ঘণ্টায় শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৮৯ দশমিক ৪৮ শতাংশ এবং শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যুহার এক দশমিক ৪৯ শতাংশ।

গত ২৪ ঘণ্টায় করোনার নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে ১৩ হাজার ৬৫২টি, আর নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ১৩ হাজার ৬৭৮টি। এখন পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ৩৪ লাখ ৩১ হাজার ৭৯২টি। এর মধ্যে সরকারি ব্যবস্থাপনায় পরীক্ষা করা হয়েছে ২৭ লাখ ৭২২টি এবং বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় সাত লাখ ৩১ হাজার ৭০টি।

দেশে বর্তমানে ১৯৯টি পরীক্ষাগারে নমুনা পরীক্ষা হচ্ছে বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদফতর। এর মধ্যে ১১৫টি আরটি-পিসিআর, ২৮টি জিন-এক্সপার্ট এবং ৪৬টি র্যাপিড অ্যান্টিজেন পরীক্ষাগারে নমুনা পরীক্ষা করা হচ্ছে।

মারা যাওয়া ১৩ জনের মধ্যে পুরুষ ৮ জন, আর নারী চার জন। এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়ে পুরুষ মারা গেলেন পাঁচ হাজার ৯৬৩ জন এবং নারী মারা গেলেন এক হাজার ৮৯৯ জন। শতকরা হিসাবে পুরুষ ৭৫ দশমিক ৮৫ শতাংশ এবং নারী ২৪ দশমিক ১৫ শতাংশ।

২৪ ঘণ্টায় মৃত্যুবরণকারীদের বয়স বিবেচনায় ষাটোর্ধ্ব রয়েছেন আট জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে দুই জন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে একজন এবং ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে আছেন দুই জন।

মারা যাওয়া ১৩ জনের মধ্যে হাসপাতালে মারা গেছেন ১২ জন এবং বাড়িতে মারা গেছেন একজন।

বিভাগ অনুযায়ী মারা যাওয়াদের মধ্যে ঢাকা বিভাগের রয়েছেন ১০ জন এবং রাজশাহী, খুলনা ও রংপুর বিভাগে একজন করে রয়েছেন।

স্বাস্থ্য অধিদফতর আরও জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হওয়া ৭১৮ জনের মধ্যে ঢাকা বিভাগের রয়েছেন ৪৭১ জন, চট্টগ্রাম বিভাগের ১২৭ জন, রংপুর বিভাগের ১২ জন, খুলনা ও বরিশাল বিভাগের ২১ জন করে, রাজশাহী বিভাগের ৪৫ জন, সিলেট বিভাগের ১৫ জন এবং ময়মনসিংহ বিভাগের ছয় জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে কোয়ারেন্টিনে যুক্ত হয়েছেন ৫৪৪ জন, ছাড়া পেয়েছেন ৬৩৮ জন। এখন পর্যন্ত কোয়ারেন্টিনে যুক্ত হয়েছেন ছয় লাখ ১১ হাজার ৮৪২ জন, ছাড়া পেয়েছেন পাঁচ লাখ ৭৪ হাজার ৮৪৭ জন। বর্তমানে কোয়ারেন্টিনে আছেন ৩৬ হাজার ৯৯৫ জন।

প্রজন্মনিউজ২৪/গাজী আক্তার

গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আইসোলেশনে যুক্ত হয়েছেন ৯৬ জন, ছাড়া পেয়েছেন ১০১ জন। এখন পর্যন্ত আইসোলেশনে যুক্ত হয়েছেন ৯৭ হাজার ৯৯০ জন, ছাড়া পেয়েছেন ৮৬ হাজার ৮০২ জন। বর্তমানে আইসোলেশনে আছেন ১১ হাজার ১৮৮ জন।

প্রজন্মনিউজ২৪/গাজী আক্তার

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন



আরো সংবাদ