ফুসফুসের ক্যান্সারে আক্রান্ত সঞ্জয় দত্ত

প্রকাশিত: ১২ অগাস্ট, ২০২০ ০৪:৩৯:৫৭

করোনা ভাইরাসে নয়, পরীক্ষায় দেখা গেছে বলিউড অভিনেতা সঞ্জয় দত্ত ফুসফুসের ক্যান্সারে আক্রান্ত। বলিউডের অভিনেতা শঙ্কর সুমনের ছেলে আদিয়ান সুমন মঙ্গলবারে টুইট করেন, “সাঞ্জু সার ফুসফুসের ক্যান্সারে আক্রান্ত। দ্রুত সেরে উঠুন সার। এই বছরে কেন এসব করছেন।”

বলিউডের চলচ্চিত্র সমালোচক কমল নেহাতও টুইট করেন, “সঞ্জয় দত্ত ফুসফুসের ক্যান্সারের আক্রান্ত। আসুন আমরা তার দ্রুত আরগ্য লাভের জন্য প্রার্থণা করি।”

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এই দুটি তথ্য আসার পর ভারতীয় গণমাধ্যমে বলিউড ‘বাবা’ বলে খ্যাত সঞ্জয় দত্তের ফুসফুসে ক্যান্সার আক্রান্ত হওয়ার খবর ছড়িয়ে পড়ে।

তবে সঞ্জয় দত্ত এই তথ্যই একটু ঘুরিয়ে জানান দেন টুইটারে।

তিনি লেখেন, “বন্ধুরা, চিকিৎসার জন্য কাজ থেকে ক্ষণিকের বিরতি নিচ্ছি। বন্ধু ও পরিবার আমার সঙ্গে রয়েছে। আমার শুভাকাঙ্ক্ষীদের দুঃশ্চিন্তা না করতে অনুরোধ করছি। আপনাদের ভালোবাসা এবং প্রার্থণায়, খুব শিগগিরই আমি ফিরে আসবো।”

টাইমস অফ ইন্ডিয়া এই অভিনেতার ঘনিষ্ট এক বন্ধুর বরাত দিয়ে জানায়, খবরটি শোনার পর সঞ্জয় দত্ত বিধ্বস্ত হয়ে পড়েছেন। বিশেষ করে তার সন্তানদের কথা চিন্তা করে।

স্ত্রী মান্যতা দত্ত, তাদের যমজ সন্তান ইকরা এবং শাহরানকে নিয়ে দুবাইতে রয়েছেন। করোনা ভাইরাসের প্রকোপের কারণে লকডাউন শুরু হওয়াতে সঞ্জয় দত্ত তাদের সঙ্গে যোগ দিতে না পেরে মুম্বাইতেই রয়েছেন এখন।

এই বন্ধু আরও জানান, তার ক্যান্সার যদিও নিরাময়যোগ্য তবে দরকার দ্রুত চিকিৎসা। যদিও সঞ্জয় দত্ত চিকিৎসার জন্য যুক্তরাষ্ট্রে যাবেন।

শ্বাসকষ্টের কারণে অগাস্টের ৮ তারিখ তিনি মুম্বাইয়ের লিলাবতি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন। তবে করোনাভাইরাস পরীক্ষার ফলাফল ‘নেগেটিভ’ আসায় পরদিন ছাড়া পেয়ে মুম্বাইয়ের নিজের বাড়িতে ফেরেন। তার একদিন পরেই সঞ্জয় দত্তের ফুসফুসে ক্যান্সার হওয়ার খবর পাওয়া যায়।

বন্ধুর বরাত দিয়ে ইন্ডিয়া টাইমস আরও জানায়, ‘মুন্নাভাই’ খ্যাত এই নায়কের ফুসফুসের ক্যান্সারের তৃতীয় ‘স্টেজ’য়ে রয়েছে।

২৯ জুলাই ৬১ বছরে পা দিয়েছেন এই অভিনেতা। লকডাউনের কারণে জন্মদিন তিনি স্ত্রী-সন্তানদের সঙ্গে কাটাতে পারেননি। তবে মুম্বাইতে বসেই পালন করেন নিজের জন্মদিন, আর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রকাশ করেন নিজের আসন্ন ছবি ‘কেজিএফ: চাপ্টার টু’ এর পোস্টার। পরিচালক প্রশান্ত নীলের ব্লকবাস্টার ‘ছবি কে জি এফ চ্যাপটার–ওয়ান’য়ের এই দ্বিতীয় পর্বে খল চরিত্রে অভিনয় করেছেন সঞ্জয় দত্ত।

বলিউড অভিনয় শিল্পী সুনিল দত্ত ও নার্গিসের সন্তান সঞ্জয় দত্ত। তার মা মারা গিয়েছিলেন ক্যান্সারে, ১৯৮১ সালে ৩ মে। আর ১৯৯৬ সালে ব্রেন টিউমারে আক্রান্ত হয়ে মারা গিয়েছেন সঞ্জয় দত্তের প্রথম স্ত্রী রিচা শর্মা। মায়ের মৃত্যুর মাত্র একদিন পর মুক্তি পায় এই অভিনেতার প্রথম অভিনীত ছবি ‘রকি’।

সঞ্জয় দত্তের প্রথম ঘরের সন্তান ত্রিশালা দত্ত বাস করেন নিউ ইয়র্কে।

২৮ অগাস্ট ডিজনি হটস্টারে মুক্তি পাবে মহেশ ভাট পরিচালিত ‘সড়ক টু’ ছবিটি। যেটাতে সঞ্জয় দত্ত ছাড়াও আরও অভিনয় করেছেন আলিয়া ভাট, পুজা ভাট, অদিত্য রয় কাপুর।

২০১৯ সালে সঞ্জয় দত্তে তিনটি ছবি মুক্তি পায়- আশুতোষ গৌরিকারের ‘পানিপাট’, করণ জোহার প্রোডাকশনের ‘কালাঙ্ক’ এবং রাজনৈতিক নাট্যচিত্র ‘প্রাস্থানাম’।

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন



আরো সংবাদ