টিকটকে বন্ধের নির্বাহী আদেশে ট্রাম্পের সই

প্রকাশিত: ০৭ অগাস্ট, ২০২০ ০১:১৬:৪৬

 

জনপ্রিয় চীনা ভিডিও শেয়ারিং অ্যাপ টিকটকের মালিক কোম্পানি বাইটড্যান্স এবং উইচ্যাটের মালিক টেনসেন্টের সঙ্গে সব ধরনের আর্থিক লেনদেনে নিষেধাজ্ঞা জারির নির্বাহী আদেশে সই করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

বিবিসি এক প্রতিবেদনে জানায়, ট্রাম্পের এই নির্বাহী আদেশ কার্যকর হবে ৪৫ দিন পর। অর্থাৎ, তখন বাইটড্যান্স এবং টেনসেন্টের সঙ্গে যে কোনো ধরনের লেনদেন নিষিদ্ধ হয়ে যাবে যুক্তরাষ্ট্রে।

বৃহস্পতিবার রাতে ট্রাম্পের নির্বাহী আদেশে বলা হয়েছে, “জাতীয় নিরাপত্তার স্বার্থে টিকটকের মালিকদের বিরুদ্ধে আমাদের অবশ্যই কঠোর পদক্ষেপ নেওয়া উচিত।”

যুক্তরাষ্ট্রে দারুণ জনপ্রিয় হয়ে ওঠা টিকটকের মাধ্যমে আমেরিকানদের ব্যক্তিগত তথ্য হাতিয়ে নেওয়া হতে পারে বলে উদ্বেগ প্রকাশ করেছিলেন মার্কিন বিশেষজ্ঞরা। তবে এই অ্যাপের ওপর চীন সরকারের নিয়ন্ত্রণ বা সরকারকে তথ্য যোগানোর অভিযোগ অস্বীকার করে আসছে টিকটক।

বাণিজ্য যুদ্ধ, হংকংয়ে চীনের আধিপত্য, দক্ষিণ চীন সাগরে চীনের নিয়ন্ত্রণ বৃদ্ধি এবং করোনাভাইরাস মহামারীর মত বিষয় নিয়ে সম্প্রতি বেইজিংয়ের সঙ্গে ওয়াশিংটনের সম্পর্কের অবনতির মধ্যে ট্রাম্প গত ১ অগাস্টে টিকটক নিষিদ্ধ করার ইঙ্গিত দেন।

টিকটক ও উইচ্যাটের নিষেধাজ্ঞার দুই আলাদা নির্বাহী আদেশেই ট্রাম্প বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্রে মোবাইল ফোনে চীনা কোম্পানির অ্যাপ ব্যবহার বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে জাতীয় নিরাপত্তা, পররাষ্ট্র নীতি এবং অর্থনীতির ওপর ‘হুমকিও’ বাড়ছে।

ট্রাম্প বলছেন, অ্যাপ ব্যবহারকারীদের যেসব তথ্য টিকটক নেয়, তার মাধ্যমে তারা যুক্তরাষ্ট্র সরকারের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ‘ট্র্যাক’ করতে পারবে, তাদের ‘ব্ল্যাকমেইল’ করার জন্য ব্যক্তিগত তথ্য জড়ো করতে পারবে কিংবা ‘করপোরেট গুপ্তচরবৃত্তি’ চালাতে পারবে।   

হংকংয়ের বিক্ষোভ কিংবা উইঘুরের মুসলমানদের ওপর নিপীড়নের মত ‘স্পর্শকাতর রাজনৈতিক’ বিষয়গুলো টিকটক ‘সেন্সর’ করে- এমন খবর পাওয়ার কথাও ট্রাম্প তার আদেশে বলেছেন।

মার্কিন প্রেসিডেন্টের এই পদক্ষেপের বিষয়ে বাইটড্যান্স বা টেনসেন্টের কোনো প্রতিক্রিয়া তাৎক্ষণিকভাবে পাওয়া যায়নি।

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন



আরো সংবাদ














ব্রেকিং নিউজ