চাঁপাইনবাবগঞ্জে করোনায় আটকে পড়েছে প্রায় ৩ হাজার ভারতীয়

প্রকাশিত: ০৯ জুলাই, ২০২০ ০৭:০১:২৯

চাঁপাইনবাবগঞ্জে করোনায় আটকে পড়েছে প্রায় ৩ হাজার ভারতীয়

চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধি: ভারতের পশ্চিমবঙ্গের মালদা জেলার কালিয়াচক থানার গোলাপগঞ্জ এলাকার সমেনা বিবি। তিনি তার খালার মৃত্যুর খবর পেয়ে গত ৭ মার্চ এসেছিলেন বাংলাদেশের চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার শিবগঞ্জ উপজেলার কানসাটে।

আসার পর সোনামসজিদ ইমিগ্রেশন বন্ধ হয়ে যাওয়ায় তিনি আর ফিনতে পারেননি। করোনা ভাইরাস সংক্রমণের পরিস্থিতিতে দুই দেশের সীমান্ত পারাপার বন্ধ হয়ে যাওয়ায় নিজ দেশে স্বামী ও সন্তানদের কাছে ফিরতে পারেননি সমেনা।

অশ্রুসিক্ত চোখে সমেনা বিবি জানান, ৩ ছেলে-মেয়েকে রেখে এসেছি। সংসার ভাঙ্গার উপক্রম, স্বামী ফেরার জন্য বার বার তাগাদা দেয়ায় প্রায়ই তিনি সোনামসজিদ স্থলবন্দরে খোঁজ নিতে যান।ইমিগ্রেশন চালু হলেই তিনি ফিরতে উদগ্রীব।তার প্রশ্ন পন্যবাহী যান চলাচল করলেও তাদের কেন ভারতীয় ইমিগ্রেশন নিচ্ছেনা।

শুধু সমেনা বিবিই নয়, তার মতো প্রায় ৩ হাজার ভারতীয় নাগরিক চাঁপাইনবাবগঞ্জে আটকে আছে। প্রতিদিনই এসব আটকে পড়ারা সোনামসজিদ স্থলবন্দরের ইমিগ্রেশন অফিসের সামনে এসে নিজ দেশে ফেরার অপেক্ষার প্রহর গুনছে এসব ভারতীয় নাগরিক।

মালদার বোস্টমনগর থানার গুলজারনগর গ্রামের আটকে পড়া আব্দুর রাজ্জাক বলেন, ভোলাহাটে আত্মীয়ের বাড়িতে বেড়াতে এসে আটকে পড়েছি। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আমাদের জানিয়েছেন ৩১ তারিখ খুলবে, তবে এখনও সীমান্ত খুলেনি।

তিনি আরও জানান, ভিসার মেয়াদও শেষ হয়ে গেছে অনেক আগেই। বউ-বাচ্চা ছাড়াই একটা ঈদ করেছি, আরেকটা ঈদ চলে আসলো। ঢাকা-কলকাতাগামী চাটার্ড বিমানের টিকিটও নিয়েছিলাম, সেটাও বাতিল হয়েছে যেতে পারছিনা।

বৃহষ্পতিবার বেলা ১২ টার দিকে অন্তত ১৫/২০ জনকে সোনামসজিদ ইমিগ্রেশন সেন্টারে ধরনা দিতে দেখা গেছে। আটকেপড়াদের চোখে মুখে লক্ষ্যকরা গেছে অজানা শঙ্কা। যেকোন মূল্যে যাবার জন্য মরিয়া এসব আটকেপড়ারা।

সোনামসজিদ ইমিগ্রেশন অফিসার জাফর ইকবাল জানান, বাংলাদেশের পক্ষ থেকে কোন বাধা না থাকলেও ভারতীয় ইমিগ্রেশন সেন্টার চালু না হওয়ায় আটকে পড়াদের পাঠানো সম্ভব হচ্ছেনা। আর ইমিগ্রেশন কখন চালু হবে তাও তিনি নিশ্চিত করে বলতে পারেননি। তবে মাঝে মাঝে আটকে পড়া ভারতীয় যাত্রী বা যাত্রীদের আত্মীয়স্বজন অফিসে এসে খোঁজখবর নিচ্ছেন।

অন্যদিকে শিবগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার সাকিব আল-রাব্বি বলেন, ঠিক কখন ইমিগ্রেশন চালু হবে, সেটির অফিসিয়ালভাবে কোন চিঠি বা নির্দেশনা পাওয়া যায়নি।

প্রজন্মনিউজ২৪/ফরিদ

 

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন



আরো সংবাদ














ব্রেকিং নিউজ












ব্রেকিং নিউজ