চট্টগ্রামে তিন হাট নিয়ে পুলিশের আপত্তি

প্রকাশিত: ২৫ জুন, ২০২০ ০২:১৬:২৭

 

করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) প্রাদুর্ভাবের মাঝে আসন্ন ঈদুল আজহাকে সামনে রেখে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের তিনটি পশুর হাট নিয়ে আপত্তি জানিয়েছে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ (সিএমপি)। প্রয়োজনীয় জায়গা না থাকায় ও সড়কের পাশের এসব হাটের কারণে সামাজিক দূরত্ব ব্যাহত ও ভয়াবহ যানজটের আশঙ্কা করছে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।

বৃহস্পতিবার (২৫ জুন) নগর উপ-কমিশনার (বিশেষ শাখা) মো. আব্দুল ওয়ারিশ খান চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তার কাছে পাঠানো এক চিঠিতে এ আপত্তি তুলে এসব অস্থায়ী হাটের অনুমতি না দেয়ার অনুরোধ জানিয়েছেন।

সিএমপি সূত্রে জানা গেছে, চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনে এবার সাতটি স্থানে অস্থায়ী পশুর হাট বসানোর জন্য ইজারা দেয়া হয়েছে।

হাটগুলো হচ্ছে- সল্টগোলা রেলক্রসিং, স্টিলমিল, পতেঙ্গা সিটি করপোরেশন উচ্চ বিদ্যালয় মাঠ, নূরনগর হাউজিং, কমল মহাজন হাট, ৪১ নম্বর ওয়ার্ডে টিকে গ্রুপের মাঠ এবং বড়পোল মাঠ।

এর মধ্যে স্টিল মিল, পতেঙ্গা সিটি করপোরেশন উচ্চ বিদ্যালয় মাঠ এবং বড়পোলে বন্দর কর্তৃপক্ষের খালি জায়গায় পশুর হাট বসানো নিয়ে সিএমপির আপত্তি আছে।

সিএমপির উপ-কমিশনার আব্দুল ওয়ারিশ খান জানান, বড়পোল মাঠে পশুর হাট বসানোর মতো জায়গা নেই। মাঠের বড় অংশে রাখা হয়েছে জলাবদ্ধতা প্রকল্পে নিয়োজিত সেনাবাহিনীর ৩৪ ইঞ্জিনিয়ারিং কনস্ট্রাকশন ব্রিগেডের সরঞ্জাম। এছাড়া মাঠটি দিনে দুইবার জোয়ারের পানিতে দুই ফুট করে প্লাবিত হয়। এখানে বাজার বসানোর অনুমতি দিলে সেটি কার্যত মাঠের পরিবর্তে বসবে পোর্ট কানেক্টিং রোডে।

পতেঙ্গায় অ্যালিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ের কাজ চলছে। ইতোমধ্যে সড়কের ৫০ শতাংশে বেস্টনি দিয়ে নির্মাণ সামগ্রী রাখা হয়েছে। বাকি ৫০ শতাংশে যদি কোরবানির পশু রাখা হয় তাহলে সেই সড়ক দিয়ে আর যানবাহন চালানো যাবে না। এতে শহরে ভয়াবহ যানজট হবে। এছাড়া করোনায় সামাজিক দূরত্ব মানাও সম্ভব হবে না।

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন