ফ্লয়েড হত্যা: মার্কিন স্বরুপ প্রকাশ পাচ্ছে

প্রকাশিত: ০২ জুন, ২০২০ ০৪:৪৭:২৮

যুক্তরাষ্ট্রে দশকের পর দশক ধরে বর্ণবাদ চলে আসছে, যা বিশেষজ্ঞরা অনেক আগে থেকেই চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়েছেন। দেশটিতে পুলিশের হেফাজতে শ্বেতাঙ্গের চেয়ে তিন গুণ বেশি কৃষ্ণাঙ্গ মারা যান। সেখানে স্বাস্থ্যসেবাতেও এই দুইয়ের মধ্যে ব্যাপক পার্থক্য। আর্থিকভাবে সাদাদের চেয়ে অনেকটাই দুর্বল কালোরা। 

এই অবস্থায়ই ২০১৬ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে অনেকটা অপ্রত্যাশিতভাবেই জয় পান রিপাবলিকান ডোনাল্ড ট্রাম্প। বলা হয়ে থাকে, তিনি একজন শ্বেতাঙ্গ শ্রেষ্ঠত্ববাদের গোঁড়া সমর্থক। নির্বাচনে জয়লাভের পর সেটাই তিনি তার কাজে–কর্মে দেখিয়ে আসছেন। তার শাসনামলে মার্কিন রাজনীতি চরম দ্বিধা-বিভক্ত। তাই ঐক্যবদ্ধ সমাজ গঠনের কথা তার কাছ থেকে ভাবাও যায় না, বলছেন বিশেষজ্ঞরা।

২৫ মে, সোমবার সন্ধ্যায় এক শ্বেতাঙ্গ পুলিশ কর্মকর্তার হাতে কৃষ্ণাঙ্গ নাগরিক জর্জ ফ্লয়েড নিহত হয়। এরপর সামনে চলে এসেছে ঐক্যবদ্ধ জাতির কথা। টানা সাত দিন ধরে গোটা যুক্তরাষ্ট্রে বিক্ষোভ চলছে। সেখানে বিক্ষোভকারীদের প্রতি সহমর্মিতার পরিবর্তে ‘অন্যায় কাজের’ জন্য তাদের বিরুদ্ধে সামরিক শক্তি প্রয়োগের কথা বলেছেন ট্রাম্প। 

তিনি এই গণবিক্ষোভকে বামপন্থীদের ‘অরাজকতা’ বলে উড়িয়ে দিয়েছেন। ভারী অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে নিরাপত্তা বাহিনী বিক্ষোভকারীদের ওপর ঝাঁপিয়ে পড়লেও কিছুই ঘটেনি বলেও তিনি দাবি করে আসছেন। করোনা ভাইরাস মহামারির মধ্যে দেশটি যখন বিপর্যস্ত, তখন বিশাল এই বিক্ষোভ নতুন করে বিপদে ফেলেছে দেশটিকে।

ড্যান বাজ নামের এক সাংবাদিক লিখেছেন, যে সময় ঐক্যবদ্ধ করার কথা বলতে হবে, সেই সময় প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বিভেদকেই উসকে দিয়েছেন। তিনি বলেছেন, ‘লুট শুরু হলে গুলি শুরু হবে।’ তিনি অগ্নিসংযোগের ঘটনায় বিরোধী ডেমোক্র্যাট নেতাদের আক্রমণ করেছেন। সংঘাত উসকে দেওয়ার জন্য সাবেক প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামাকেও দায়ী করেছেন।

যুক্তরাষ্ট্র ট্রাম্পের শাসনামলে নিজেদের মানবাধিকার রক্ষার প্রশ্নে অনেকটা পিছিয়ে এসেছে। আন্তর্জাতিক নীতিমালা ও আইনকেও বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখানো হয়েছে। দেশটিতে সাংবাদিক, অধিকারকর্মীদের অধিকার সংকুচিত হওয়া নিয়ে প্রশ্নও উঠছে। যুক্তরাষ্ট্রে নতুন করে এই ‘বর্ণবাদী হত্যা’ পুরো বিশ্বের মনোযোগ কেড়েছে। বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে বিক্ষোভ হচ্ছে নৃশংস এই হত্যাকাণ্ডের প্রতিবাদে।

প্রজন্ম নিউজ/ নুর

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন



আরো সংবাদ














ব্রেকিং নিউজ