কৃষকদলের নেতাকর্মীকে কৃষকের পাশে দাঁড়াতে হবে


করোনা মহামারির কারণে অসহায় কৃষকের পাশে দাঁড়াতে নেতাকর্মীদের আহবান জানিয়েছেন জাতীয়তাবাদী কৃষক দলের আহ্বায়ক শামসুজ্জামান দুদু ও সদস্য সচিব কৃষিবিদ হাসান জাফির তুহিন। তারা বলেন, ‘বর্তমান সময়ে কৃষি শ্রমিক সংকট ও আর্থিক অনটনের কারণে কৃষক তার ধান কাটা, মাড়াই ও সংরক্ষণের অনিশ্চয়তার ভিতর পড়েছে। এমন সংকট মুহূর্তে দলীয় নেতাকর্মীদের কৃষকের পাশে দাঁড়াতে হবে। 

শনিবার (২৫ এপ্রিল) এক বিবৃতিতে তারা বলেন, সারা বিশ্বকে আজ একই সাথে দুইটি সমস্যার সাথে লড়াই করতে হচ্ছে, একদিকে করোনা ভাইরাস অপরদিকে ক্ষুধা। বাংলাদেশ অত্যন্ত ঘনবসতিপূর্ণ ও দরিদ্র একটি দেশ, চলমান করোনা আতঙ্কের সাথে ভবিষ্যতে খাদ্য সংকট দেখা দিতে পারে এটা এখন প্রকাশ্য আলোচনা।

নেতৃদ্বয় বলেন, বাংলাদেশে এখন বোরো ধান কাটার মৌসুম। সারাদেশে কৃষকরা অনেক কষ্ট করে বোরো ধান চাষ করেছেন। বর্তমান সময়ে কৃষি শ্রমিক সংকট ও আর্থিক অনটনের কারণে কৃষক তার ধান কাটা, মাড়াই ও সংরক্ষণের অনিশ্চয়তার ভিতর পড়েছে। এমন পরিস্থিতিতে কৃষক সমাজকে রক্ষার জন্য জাতীয়তাবাদী কৃষক দল সারাদেশে কৃষকের পাশে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। সে লক্ষ্যে জাতীয়তাবাদী কৃষক দলের কেন্দ্রীয়, জেলা, উপজেলা, ইউনিয়ন এবং গ্রাম পর্যায়ের প্রতিটি নেতাকর্মীকে তাদের সাধ্যমত কৃষকের পাশে থেকে তাদের ধান কাটার ব্যাপারে বিভিন্নভাবে সহযোগিতা করার জন্য আহ্বান জানানো হয়েছে। 
বিবৃতিতে আরও বলা হয়, দলীয় নেতাকর্মীর পাশাপাশি সমাজের দায়িত্বশীল ব্যক্তিবর্গ ও সরকারের কাছেও জোর দাবি জানানো হচ্ছে, রাষ্ট্রের সকল শক্তিকে কাজে লাগিয়ে কৃষকের কষ্টার্জিত ফসল রক্ষা করার জন্য। 

নেতারা আরও বলেন, কৃষকের ফসল নির্বিঘ্নে ঘরে তুলতে পারলে অন্তত দেশের মানুষ খাদ্যের যোগান এর ব্যাপারে দুশ্চিন্তামুক্ত থাকতে পারবে। অন্যথায় আমাদের সকলকে বিপদের সম্মুখীন হতে হবে। এ ব্যাপারে সকলকে দ্রুত সিদ্ধান্ত গ্রহণ করতে হবে।

প্রজন্ম নিউজ/নুর