মৃত্যুপুরী স্পেনে হানা দিয়েছে বন্যা

প্রকাশিত: ০৪ এপ্রিল, ২০২০ ০৭:৫৪:৫৯

 

logo

Eng

শনিবার, ০৪ এপ্রিল, ২০২০

শিরোনাম

মৃত্যুপুরী স্পেনে হানা দিয়েছে বন্যা

প্রকাশ : ০৪ এপ্রিল ২০২০, ১৯:৩৬

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

করোনায় আক্রান্তের সংখ্যায় ইতালিকে ছাড়িয়ে গেছে স্পেন। দেশটিতে এখন আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে এক লাখ ২৪ হাজার ৭৩৬ জনে। এরওপর এবার দেশটিতে শুরু হয়েছে বন্যা।

আন্তর্জাতিক জরিপ সংস্থা ওয়ার্ল্ডওমিটার্স জানিয়েছে, নতুন করে স্পেনে গত একদিনে আরো ৫ হাজারের বেশি মানুষের দেহে করোনাভাইরাসের উপস্থিতি শনাক্ত করা হয়েছে। তবে গত দিনগুলোর তুলনায় শুক্র ও শনিবার দেশটিতে মৃত্যুর সংখ্যা কমেছে।

স্পেনের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, শুক্রবার দেশজুড়ে আক্রান্তের সংখ্যা ১ লাখ ১৭ হাজার ৭১০ জন থাকলেও শনিবার সেটি বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১ লাখ ২৪ হাজার ৭৩৬ জনে।

এদিকে মৃত্যুপুরী স্পেনে টানা বৃষ্টিতে বন্যা পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে দেশের পূর্ব অংশে। আবহাওয়া অফিস সূত্রে খবর, ৪ মাসের বৃষ্টি হয়েছে মাত্র ২৪ ঘণ্টায়! আর তার ফলে পূর্ব স্পেনের অধিকাংশ এলাকা বন্যার পানিতে তলিয়ে গেছে।

ইউরোপের দেশ স্পেনে ভয়ঙ্কর দাপট দেখাচ্ছে ভয়াল করোনা। এরই মধ্যে দেশটি প্রাণঘাতী এই ভাইরাসের বলি হয়েছেন ১১ হাজার ৭৪৪ জন মানুষ। আক্রান্ত হয়েছেন ১ লাখ ২৪ হাজার ৭৩৬ জন। গোটা দেশ এখন করোনা মোকাবেলায় ব্যস্ত। দেশজুড়ে জারি হয়েছে লকডাউন। শোনা যাচ্ছে পরিস্থিতি এতটাই ভয়াবহ যে লকডাউনের সময়সীমা আরো বাড়ানো হবে। এই পরিস্থিতিতে দেশের পূর্ব অংশে বন্যা পরিস্থিতিতে কার্যত ঘুম ছুটেছে প্রশাসনের।

সরকারি সূত্রে খবর, স্পেনে চারমাসে যত বৃষ্টি হয়, সেই একই পরিমাণ বৃষ্টি হয়েছে মাত্র ২৪ ঘণ্টায়। কাস্তেলোঁ প্রদেশের রাজধানী কাস্তেলোঁ দে লা প্লানায় প্রায় ১ লক্ষ ৭০ হাজার মানুষ বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন বলে জানা গেছে।

স্পেনের আবহাওবিদরা জানিয়েছেন, বছরের এই সময় সাধারণত ৪২ মিলিমিটার মতো বৃষ্টিপাত হয়। কিন্তু ২৪ ঘণ্টায় (৩১ এপ্রিল থেকে ১ মার্চ) বৃষ্টিপাত হয়েছে ১৪৭ মিলিমিটার। তারপর থেকে হালকা ও মাঝারি বৃষ্টি তো চলছেই। ফলে পূর্ব স্পেন কার্যত বন্যায় তলিয়ে গেছে। বৃষ্টির জেরে স্পেনের ভ্যালেন্সিয়ার উপকূলের অবস্থাও বেশ খারাপ। ১৯৭৬ সালের পর, গত ৩০ বছরে ২৪ ঘণ্টায় এতটা বৃষ্টিপাত আর কোনও বছর হয়নি। ২৪ ঘণ্টা বা একদিনের হিসেবে গত কয়েক বছরে এটি রেকর্ড বৃষ্টি। যার জেরে স্পেনের আলমাসোরা বুরিয়ানা এবং ভিলাফ্র্যাঙ্কা শহর ভাসছে পানিতে।

প্রজন্মনিউজ২৪/নুর

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন



আরো সংবাদ