কোয়ারেন্টাইন শেষে খালেদা জিয়ার শারীরিক অন্যান্য পরীক্ষা

প্রকাশিত: ২৭ মার্চ, ২০২০ ০৬:৪৩:০৪

কারামুক্তির পর বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া তার বাসা ফিরোজায় কোয়ারেন্টাইনে আছেন। সব নিয়ম মেনেই চিকিৎসকরা তাকে পর্যবেক্ষণে রেখেছেন।

বৃহস্পতিবার কোয়ারেন্টাইনে থাকা খালেদা জিয়ার প্রথম দিনে চিকিৎসকদের একটি দল তার খোঁজ খবর নিয়েছেন।
 
খালেদা জিয়ার চিকিৎসার জন্য বিএনপি গঠিত ছয় সদস্যের এই দলে ছিলেন- প্রফেসর ডা. এফ এফ রহমান, প্রফেসর ডা. রজিবুল ইসলাম, প্রফেসর ডা. আব্দুল কদ্দুস, প্রফেসর ডা. হাবিবুর রহমান, প্রফেসর সিরাজ উদ্দিন ও প্রফেসর ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন। এরপর, বিএনপিপন্থী চিকিৎসকদের নেতা এ জেড এম জাহিদ হোসেন বলেন,  খালেদা জিয়া বিএসএমএমইউ চিকিৎসকদের পরামর্শে সেলফ কোয়ারেন্টাইনে আছেন। তার অবস্থা আগের মতোই, তবে নিজের পরিবেশে থাকার কারণে তিনি মানসিকভাবে স্বস্তিবোধ করছেন।

জাহিদ হোসেন আরও বলেন, প্রতিদিনই আমরা কোয়ারেন্টাইন, আইসোলেশন নিয়ম মেনে পর্যবেক্ষণ করবো। আজ আমরা গিয়েছিলাম। কিছু ওষুধের ডোজ কমানো-বাড়ানো হয়েছে। কোয়ারেন্টাইন শেষে তার শারীরিক অন্যান্য পরীক্ষা-নিরীক্ষা হবে। 

খালেদা জিয়ার শারীরিক ও মানসিক অবস্থা নিয়ে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য সেলিমা রহমান বলেন, তিনি (বেগম জিয়া) ভীষণ অসুস্থ, বাসায় এখন ডাক্তারদের তত্ত্বাবধানে আছেন। তবে সব আত্মীয়-স্বজনদের কাছে পেয়ে মানসিকভাবে কিছুটা ভালো আছেন।

এদিকে খালেদা জিয়ার বোন সেলিমা ইসলাম গণমাধ্যমে বলেছেন, তার শারীরিক অবস্থা খুবই খারাপ। হাঁটতে পারছেন না, বসতে পারছেন না। সেইসাথে তার শ্বাসকষ্টও আছে। তবে বাসায় আসার পর মানসিকভাবে অনেকটাই ভালো আছেন। নাতিদের সাথে সময় কাটিয়ে একটু উৎফুল্লতা অনুভব করছেন, কথা বলছে। হাসপাতালে খুব বেশি কথা বলতো না।

প্রজন্মনিউজ/নুর

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন