কুমিল্লাকে ১৮০ রানের টার্গেট দিল খুলনা

প্রকাশিত: ০৮ জানুয়ারী, ২০২০ ০৩:৩২:২২

আসরের দুর্দান্ত শুরু করা খুলনা টাইগার্স খেই হারিয়েছে হুট করেই। সিলেট বিভাগীয় আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে পরপর দুই ম্যাচ হেরে অনিশ্চিত করে তুলেছে নিজেদের সুপার ফোরের টিকিট। তবে এখনও সুযোগ রয়েছে তাদের। সেজন্য দরকার তিন ম্যাচে অন্তত ১টি জয়। সেই কাঙ্ক্ষিত জয়ের মিশন নিয়ে আজ (বুধবার) কুমিল্লা ওয়ারিয়র্সের মুখোমুখি হয়েছে মুশফিকুর রহীমের খুলনা।

টস হেরে আগে ব্যাট করে নির্ধারিত ২০ ওভারে ২ উইকেটে দাঁড় করিয়েছে ১৭৯ রানের সংগ্রহ। যথারীতি দলকে এ সংগ্রহ এনে দেয়ার পেছনে বড় অবদান রেখেছেন রাইলি রুশো ও অধিনায়ক মুশফিক। কুমিল্লা অধিনায়ক ডেভিড মালানের আমন্ত্রণে আগে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা ইতিবাচক করে খুলনা। দুই ওপেনার নাজমুল হোসেন শান্ত ও মেহেদি হাসান মিরাজ মিলে ৯.১ ওভারে যোগ করেন ৭১ রান। তাদের জুটি ভাঙে শান্তর বিদায়ে।

সৌম্য সরকারের বোলিংয়ে সানজামুল ইসলামের হাতে ক্যাচ দেয়ার আগে ২৯ বলে ৪ চার ও ১ ছয়ের মারে ৩৮ রান করেন তিনি। তবে প্রত্যাশার তুলনায় দ্রুত ব্যাটিং করতে পারেননি মিরাজ। শুরু থেকেই স্বাভাবিক ব্যাটিং করতে ব্যর্থ হওয়া মিরাজ আউট হন ১৩তম ওভারের দ্বিতীয় বলে। সরাসরি বোল্ড করে দিয়ে মিরাজের ৩৯ বলে ৩৯ রানের ইনিংসের সমাপ্তি ঘটান ডেভিড উইজ। ইনিংসের বাকি গল্পটা লিখেছেন রুশো ও মুশফিক।

দুজনের অবিচ্ছিন্ন তৃতীয় উইকেট জুটিতে ৪৬ বলে ৮৫ রান যোগ করেছে খুলনা। যার সিংহভাগ রানই এসেছে রুশোর ব্যাট থেকে। মাত্র ২৮ বলে পূরণ করেন নিজের ব্যক্তিগত ফিফটি। যা কি না চলতি আসরে তার চতুর্থ ফিফটি। মাইলফলকে পৌঁছে ফের ফিফার মতো করে উদযাপন করেন এ দক্ষিণ আফ্রিকান তারকা। ব্যক্তিগত ফিফটির পরেও থামেনি রুশোর ব্যাট। খেলেছেন ইনিংসের শেষ পর্যন্ত।

অপরাজিত থেকেছেন ৩৬ বলে ৬ চার ও ৪ ছয়ের মারে ৭১ রানের অসাধারণ এক ইনিংস খেলে। এ ইনিংসের পর চলতি আসরে তার মোট সংগ্রহ গিয়ে দাঁড়িয়েছে ৪১১ রানে। যা চলতি আসরের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ। রুশোকে যথাযথ সঙ্গ দিয়ে মুশফিকও খেলেছেন কার্যকরী ইনিংস। খুলনা অধিনায়ক ২ চারের মারে ১৭ বলে করেন ২৪ রান। জয়ের জন্য ১৮০ রান করতে হবে কুমিল্লাকে।

প্রজন্মনিউজ২৪/ মামুন

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন





ব্রেকিং নিউজ