এবিএম সুমনই কি তবে ‘মাসুদ রানা’চরিত্রে

প্রকাশিত: ৩১ অগাস্ট, ২০১৯ ০৩:৫৬:৫২

কে হবেন মাসুদ রানা- এমন প্রশ্ন এখন সবার মুখে। আসলে কে হচ্ছেন? চূড়ান্ত ঘোষণা না এলেও বারবার উঠে আসছে অভিনেতা এবিএম সুমনের নামটি। তবে এ বিষয়ে এখন মুখ খুলতে নারাজ ‘মাসুদ রানা’ ছবির বাংলাদেশি প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান জাজ মাল্টিমিডিয়ার কেউ।

তবে ইন্টারন্যাশনাল মুভি ডাটাবেজ (আইএমডিবি)-এর পক্ষ থেকে জানা যায়, মাসুদ রানা চরিত্রে অভিনয় করবেন এবিএম সুমন। ছবির জন্য অডিশনও দিয়েছেন তিনি।

সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম ফেসবুকে নির্মাতা ফিলিপ টানের একটি ছবির সূত্র ধরে এবিএম সুমনের নামটি বেরিয়ে আসে। নির্মাতা ফিলিপ টান মাসুদ রানা ছবির সেকেন্ড ইউনিট ডিরেক্টর হিসেবে কাজ করছেন। সম্প্রতি তিনি তার ফেসবুকে বেশ কিছু ছবি প্রকাশ করেছেন। ছবির ক্যাপশনে তাদের ঢাকায় আসার বিষয়টি নিশ্চিত করে লিখেছেন, ‘আমার এসেছি বাংলাদেশের মানুষদের জন্য অ্যাকশন হিরো নির্বাচন করতে।’

পাশাপাশি তার পোস্ট করা ছবিগুলোর মধ্যে একটি ছবি রয়েছে ‘মাসুদ রানা’ ছবির কলাকুশলীদের। ছবিতে দেখা যায়, ‘মাসুদ রানা’র পরিচালক আসিফ আকবর, ফিলিপ টান, বাংলাদেশের অভিনেতা শহীদুল আলম সাচ্চু, পরিচালক এস আই খানসহ সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে দাঁড়িয়ে আছেন এবিএম সুমন।

তবে এ বিষয়ে অভিনেতা এবিএম সুমনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ‘এ বিষয়ে আমার বলার কিছু নেই। বিষয়টি নিয়ে প্রযোজকরা কথা বলবেন।’ জানা গেছে, শিগগিরই ঘোষণা করা হবে কে হচ্ছে মাসুদ রানা? আর আগামী সেপ্টেম্বরে শুরু হবে ছবির শুটিং।

এদিকে, জাজ মাল্টিমিডিয়ার সঙ্গে হলিউডের সিলভারলাইনসহ আরও তিনটি প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানের অংশগ্রহণে ৮৩ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত হবে ‘মাসুদ রানা’ ছবিটি। এটি নির্মাণ করবেন বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত হলিউডের ডিরেক্টর আসিফ আকবর।

ছবির বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয়ের জন্য ইতোমধ্যে ‘আয়রন ম্যান-২’ ছবির অভিনেতা মিকি রুর্কি, ‘দ্য ট্রান্সপোর্টার’র অভিনেত্রী গাব্রিয়েলা রাইট ও ভারতীয় রেসলার দ্য খালি চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন। পাশাপাশি ছবির নায়িকা হিসেবে সুলতা চরিত্রে বলিউডের অভিনেত্রী শ্রদ্ধা কাপুরকে দেখা যাবে বলেও ঘোষণা দিয়েছে জাজ মাল্টিমিডিয়া।

কাজী আনোয়ার হোসেনের উপন্যাস অবলম্বনে ‘মাসুদ রানা’ ছবির চিত্রনাট্য পরিমার্জন, পরিবর্তন ও পরিবর্ধন করেছেন আবদুল আজিজ, আসিফ আকবর ও নাজিম উদ দৌলা। এরপর হলিউডের পেশাদার স্ক্রিপ্ট রাইটার আর চলচ্চিত্র সমালোচকদের নিয়ে চূড়ান্ত চিত্রনাট্য তৈরি করা হয়েছে।

এর শুটিং হবে- মরিশাস, থাইল্যান্ড, বাংলাদেশেসহ বেশ কিছু দেশে। ছবিটি ইংরেজি ও বাংলা ভাষায় আসবে। পরে অন্য ভাষায় ডাবিং বা সাব টাইটেল করা হবে। ছবিটি মুক্তি দেওয়া হবে বিশ্বব্যাপী।

প্রজন্মনিউজ২৪/রেজাউল

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন





ব্রেকিং নিউজ