কাশ্মীরে ১৪৪ ধারা ভেঙ্গে বিক্ষোভ,  নিহত ৬

প্রকাশিত: ০৮ অগাস্ট, ২০১৯ ০১:০৮:২০

সংবিধানের ৩৭০ ও ৩৫-এ ধারা বাতিল করে গোটা কাশ্মীরকে একতরফাভাবে দুটি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে বিভক্ত করেছে ভারতের মোদির সরকার। এর বিরুদ্ধে যেন কাশ্মীরিরা বড় কোনো প্রতিবাদ করতে না পারে সে জন্য আগে থেকেই সব ব্যবস্থাও করে রেখেছে দেশটির সরকার। জারি রয়েছে ১৪৪ ধারাও। তবে ধারা বাতিলের একদিন পরই ১৪৪ ধারা ভঙ্গ করে বিক্ষোভ করেছে কাশ্মীরিরা। শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভে নিরাপত্তাবাহিনীর গুলিতে অন্তত ৬ জন নিহত হয়েছেন। খবর আনন্দবাজারের।

জানা গেছে, ভারতীয় বাহিনীর কঠোর অবস্থানের মধ্যেই কাশ্মীরের বিভিন্ন এলাকায় বুধবার বিক্ষোভ হয়েছে। ১৪৪ ধারা উপেক্ষা করে শ্রীনগরে রাস্তায় নেমে প্রতিবাদ জানিয়েছেন কাশ্মীরি জনগণ।

কাশ্মীরি কয়েকটি মিডিয়ার বরাতে ডন অনলাইন জানিয়েছে, বুধবার বিক্ষোভরত কাশ্মীরিদের ওপর নির্বিচারে গুলি চালায় ভারতীয় বাহিনী। এতে ছয়জন নিহত ও শতাধিক মানুষ আহত হয়েছেন। গ্রেফতার করা হয়েছে ৪ শতাধিক রাজনীতিক, উপদেষ্টা ও স্বাধীনতাপন্থী নেতাদের।

গুলিবিদ্ধ ওই ছয়জনকে শ্রীনগর হাসপাতালে নেয়ার পর চিকিৎসকরা মৃত ঘোষণা করেন। এছাড়া আহত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন শতাধিক মানুষ। শ্রীনগরে গুলি চালানোর বিষয়টি ভারতীয় কর্মকর্তারা রয়টার্সের সাংবাদিকের কাছে স্বীকার করেছেন। বিক্ষোভ ঠেকাতে দেশের বাকি অংশের সঙ্গে হিমালয় অঞ্চলটির সব ধরনের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেয়া হয়েছে।

কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা বাতিলের ঘোষণাকে সামনে রেখে কাশ্মীরের ফোন ও ইন্টারনেট সংযোগ সম্পূর্ণ বিচ্ছিন্ন করে দেয়া হয়। এই মুহূর্তে ভারত নিয়ন্ত্রিত জম্মু-কাশ্মীর বিশ্বের সবচেয়ে সামরিকীকৃত এলাকায় পরিণত হয়েছে। সেনাবাহিনী, আধা-সামরিক বাহিনী ও পুলিশ সদস্য মিলিয়ে সেখানে ৭ লক্ষাধিক নিরাপত্তাবাহিনীর সদস্য মোতায়েন রয়েছে ভারত। অস্থায়ী কারাগার বানানো হয়েছে হোটেল, গেস্ট হাউস, সরকারি ও বেসরকারি বিভিন্ন ভবনকে।

প্রজন্মনিউজ.

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন



আরো সংবাদ














ব্রেকিং নিউজ