সরিষায় হাঁসি হাসছেন কৃষক

প্রকাশিত: ০৫ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০৩:৫৯:৫২

সারাবছর নানা ফসল উপন্ন হয় বলে পঞ্চগড়ের দেবীগঞ্জ উপজেলাকে কৃষি ভিত্তিক উপজেলা হিসেবে মনে করা হয়। এই এলাকার মাটি কৃষির জন্য অত্যন্ত উপযোগী। প্রত্যেক কৃষকেরাও অনেক পরিশ্রম করেন। তাই কম খরচ আরও বেশি লাভের আশায় এবার সরিষা আবাদের দিকে ঝুঁকছেন কৃষকরা। গত কয়েক বছরে এই এলাকার চাষিরা মধ্যবর্তী ফসল হিসেবে সরিষা আবাদ করে ব্যাপক লাভবান হচ্ছেন।

এ বিষয়ে দেবীগঞ্জের চাষিরা জানান, আমন এবং বোরো চাষের মধ্যবর্তী সময়ে সরিষা চাষ করলে মাটির উর্বরতা শক্তি বৃদ্ধি পায়। পরের ফসলের জন্য খুব বেশি চাষ করতে হয় না। জৈব সারও দিতে হয় না। অন্যদিকে মাত্র দুটি চাষ দিয়েই সরিষা চাষ করা যায়। সরিষা আবাদে কোনো প্রকার সেচ লাগে না । সার ও কীটনাশকও প্রয়োগ করতে হয় না। কোনো রকম বীজ ফেলে দিলেই আবাদ হয়ে যায়। 

ফলে কম খরচে বেশি লাভ পাওয়া যায়। কম সময়ে সরিষার ফসল ঘরে তোলা যায় বলে একটি জমিতে তিন বার আবাদও করা যায়। আর এসব কারণেই এই উপজেলায় দিন দিন সরিষাার আবাদ বাড়ছে। এক একর জমিতে সরিষা আবাদ করতে চাষিদের খরচ হয় ১৫ হাজার টাকা। প্রতি একরে ১৫ মণ সরিষা উৎপাদন করেন তারা। বাজারে ২ হাজার টাকা মণ দরে সরিষা বিক্রি হয়। ফলে খরচের দ্বিগুণ লাভ করছেন চাষিরা। এবছর আবহাওয়া অত্যন্ত ভাল থাকায় ফলনও ভাল হবে বলে আশা করছেন চাষিরা।

বিনয়পুর সেন পাড়া গ্রামের চাষি কাশেম আলী জানান, গতবার এক বিঘা জমিতে সরিষা আবাদ করেছিলাম। এবার তিন বিঘা জমিতে আবাদ করেছি। এ ফসলটা বোরো এবং আমন চাষের জন্য উপকারী। তাছাড়া বাড়তি আয়ও হচ্ছে। নীরেন সেন জানান, তৃতীয় ফসল হিসেবে সরিষা চাষ করে বাড়তি আয় করতে পারছি। আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় এবছর ফলন বৃদ্ধি পাবে।  
 
উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্ত হুমায়ুন কাদির সরকার জানান, কৃষি বিভাগ থেকে এ বছর উপজেলার প্রায় ছয়’শ চাষিকে প্রণোদনা সহায়তা দেয়া হয়েছে। কৃষকদেরকে উন্নত জাতের বীজ ও সার সরবরাহ করা হয়েছে। এছাড়াও সরিষা ক্ষেতে মৌমাছি চাষ করলে ১৫ থেকে ২০ ভাগ ফলন বেড়ে যাবে। 

কৃষি বিভাগের তথ্য মতে, গত ২০১৭-২০১৮ অর্থবছরে নয়’শ হেক্টর জমিতে সরিষা আবাদ করেন এই এলাকার চাষিরা। কিন্তু ২০১৮-২০১৯ অর্থবছরে তা বেড়ে গিয়ে প্রায় বার’শ হেক্টরে দাঁড়িয়েছে। এই উপজেলায় এবছর প্রায় ষোল’শ মেট্রিক টন সরিষা উৎপাদন হবে বলে আশা করছেন কৃষি বিভাগ। 

প্রজন্ম নিউজ/শাহারিয়ার রহমান

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন





ব্রেকিং নিউজ