পর্বতের ভুত

প্রকাশিত: ২২ অক্টোবর, ২০১৮ ১২:৫৪:৫৭ || পরিবর্তিত: ২২ অক্টোবর, ২০১৮ ১২:৫৪:৫৭

তুষার চিতার পছন্দ বরফের চাদর
তুষার চিতার পছন্দ বরফের চাদর

‘গোস্ট অব মাউনটেন্ট’

                -হেলাল নিরব

তোমরা কি কখনও তুষার চিতা বা স্নো লেপার্ডের কথা শুনেছো? শুনো নাই! সমস্যা নেই। আমি তোমাদের জানাচ্ছি,পর্বতের ভূত খ্যাত তুষার চিতার কথা।

তুষার চিতা বা স্নো লেপার্ডরা প্রধানত তুষার আবৃত খাড়া পর্বতের ঢালে বসবাস করে।এরা বড় বিড়াল প্রজাতির একটি প্রানী।এরা মাংসাশী প্রানী। এদের সাধারনত মধ্যে ও দক্ষিণ এশিয়ায় দেখতে পাওয়া যায়।এদরে বৈজ্ঞানিক নাম Panthera uncia।

জেনেটিক রিসার্চ অনুযায়ী, অন্যান্য বড় বিড়ালের তুলনায় বাঘের সাথে এদের বেশ মিল।আর তাই এদের বাঘের  সিস্টার স্পেসিস বলা হয়।

তুষার চিতার পুরো গায়ে কালো বা বাদামি গোল গোল স্পট থাকে। যা তাদের ছদ্মবেশী করতে প্রচুর সাহায্য করে। এরা প্রকৃতির মাঝে আত্মগোপন করতে বেশ পটু।এরা নির্জন পাহাড়ী এলাকায় বসবাস করতে পছন্দ করে।তুষার চিতা সক্রিয়ভাবে শিকার খোজে।এরা বিড়ালের মতো সুযোগ সন্ধানী। তারা তাদের ওজনের থেকেও ২-৪গুন বড় প্রাণীকেও হত্যা করতে পারে।

মজার বিষয় হল, তুষার চিতা কখনও গর্জন করতে পারে না।আর এদের জনসম্মুখে খুবই কম সময় দেখা যায় বলে, এদের পর্বতের ভুত বলা হয়।তারা কোন বিপদের আচ করলেই মুহুর্তে অদৃশ্য হয়ে যাবে।যা দেখে হতবাক হয়ে এদের পর্বতের ভুত বলেও ভাবতে পারো।

সূত্র:- টেল মি হোয়াই

পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন